সক্ষমতাকে কাজে লাগিয়ে জলবায়ু পরিবর্তন ও বিশ্ব বাণিজ্য চ্যালেঞ্জ মোকাবেলার আহবান স্পিকারের

2017-05-15_6_417579

ঢাকা, ১৫ মে ২০১৭ :স্পিকার ও সিপিএ চেয়ারপার্সন ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী উন্নয়নশীল দেশসমুহের সংসদ সদস্যগণের সক্ষমতাকে কাজে লাগিয়ে তথ্য প্রযুক্তি, জলবায়ু পরিবর্তন ও বিশ্ব বাণিজ্য চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করার আহবান জানিয়েছেন।
তিনি আজ সিঙ্গাপুরে প্যান প্যাসিফিক হোটেলে রাজারতœাম স্কুল অব ইন্টারন্যাশনাল স্টাডিজ- ডব্লিউটিও সেক্রেটারিয়েট আয়োজিত “সংসদ সদস্যদের জন্য আন্তর্জাতিক বাণিজ্য বিষয়ক কর্মশালা-২০১৭” এ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে একথা বলেন।
বাণিজ্যকে অর্থনীতির মূল চালিকা শক্তি অভিহিত করে স্পিকার বলেন, সীমিত সম্পদ রয়েছে
এমন রাষ্ট্রসমূহের দক্ষ মানব সম্পদ তৈরির পাশাপাশি প্রাকৃতিক সম্পদের সুস্ঠু ব্যবহারের মাধ্যমে তাদের সুষম উন্নয়ন নিশ্চিত করতে হবে।
তিনি আঞ্চলিক সহযোগিতা বৃদ্ধির প্রতি গুরুত্বারোপ করে বলেন, পারস্পরিক প্রযুক্তি ও অভিজ্ঞতা বিনিময়ের মাধ্যমে আন্তঃসম্পর্ক জোরদার ও টেকসই উন্নয়ন সম্ভব।
প্রথমদিনের সেশনশেষে স্পিকার ড.শিরীন শারমিন চৌধুরী সিঙ্গাপুর পার্লামেন্টের স্পিকার এমডিএম হালিমাহ্ ইয়াকুব সাথে সাক্ষাৎ করেন।
সাক্ষাৎকালে তাঁরা দ্বি-পাক্ষিক স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে কথা বলেন। এছাড়াও তাঁরা নারী ক্ষমতায়ন, নারী শিক্ষা, জেন্ডার সমতা, নারীর আর্থ-সামাজিক উন্নয়ন, নারীর প্রতি সহিংসতারোধ,সংসদীয় রীতিনীতি ও চর্চা, সংসদীয় কার্যক্রমে নারীর অংশগ্রহণ ইত্যাদি বিষয়ে আলোচনা করেন।
স্পিকার বলেন, বাংলাদেশের সাথে সিঙ্গাপুরের নিবিড় ও বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক রয়েছে। সিঙ্গাপুরে বাংলাদেশের অনেক কর্মী রয়েছে,যারা সিঙ্গাপুরের উন্নয়ন অংশীদার। দু’দেশের মধ্যে ব্যবসা বাণিজ্য বৃদ্ধির মাধ্যমে ভবিষ্যতে এ সম্পর্ক আরও সুদৃঢ় হবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।
সাক্ষাৎকালে সিঙ্গাপুরের স্পিকার বাংলাদেশে নারীর ক্ষমতায়ন ও দেশের সার্বিক অগ্রগতির প্রশংসা করে বলেন, রাষ্ট্রের গুরুত্বপূর্ণ কাজে নারীদের সম্পৃক্তকরণে বাংলাদেশ সরকারের পদক্ষেপ অনুকরণীয়।


*

*

Top