টাঙ্গাইলে শিয়াল ধরে জবাই করে চড়ুইভাতি করলেন যুবকরা

Untitled-1

টিবিটি সারাদেশঃ

টাঙ্গাইলের বাসাইল উপজেলায় শিয়ালের মাংস দিয়ে ব্যতিক্রমী পিকনিক বা চড়ুইভাতির আয়োজন করে আলোচনায় এসেছেন একদল যুবক।

গতকাল শনিবার রাত ৮টার দিকে শিয়াল ধরে জবাই করা হয়। পরে চামড়া তুলে টুকরা করে ওই পিকনিকের আয়োজন করে যুবকরা।

জানা গেছে, বাসাইল উপজেলার সোনালিয়া গ্রামের কয়েকজন যুবক শনিবার দুপুরে একটি শিয়াল আটক করে। শিয়ালের মাংস খেলে শরীরের ব্যথা ভালো হয়- এমন ধারণা থেকেই তারা শিয়ালটির গলাকেটে জবাই করে।

পরে রান্না করে খাওয়ার আয়োজন করে। শিয়ালের মাংস খাওয়ার জন্য ৫০ টাকা করে চাঁদা তোলা হয়। স্থানীয় বারেক আলীর বাড়িতে ওই শিয়ালের মাংস রান্না করা হয়।

আয়োজনের খবর পেয়ে স্থানীয় ২৫-৩০ জন যুবক ছাড়াও বেশ কয়েকজন বয়স্ক ব্যক্তি শিয়ালের মাংস খেতে ওই পিকনিকে অংশ নেন।

মনির নামে এক যুবক বলেন, দুপুরে শিয়ালটি ধরা হয়। মুরব্বিরা বললেন- শিয়ালের মাংস খেলে শরীরের ব্যথা ভালো হয়। তাই আমরা নিজেদের মধ্যে চাঁদা তুলে এটি রান্না করে খেয়েছি। মাংসের স্বাদ মোটামুটি ভালোই।

শিয়ালের মাংস রান্না করা বাবুর্চি খলিল বলেন, অনেক উৎসাহ নিয়েই শিয়াল রান্না করেছি ও খেয়েছি। খুব ভালোই লেগেছে খেতে।

বিষয়টি জানতে চাইলে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান খোরশেদ আলম বলেন, ঘটনাটি শুনেছি। তবে কারা করেছে বিষয়টি আমার জানা নেই।

এ প্রসঙ্গে বাসাইল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নুরুল ইসলাম খান বলেন, বন্যপ্রাণি আটক করা বা খাওয়া অপরাধ। বন্যপ্রাণি সংরক্ষণ আইনে বন বিভাগ তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে পারে।


One Comment;

  1. Uttom said:

    বন্যপ্রাণি আটক করা বা খাওয়া অপরাধ। বন্যপ্রাণি সংরক্ষণ আইনে বন বিভাগ তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে পারে।

*

*

Top